শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন

ঝিনাইদহের দুই থানার ওসিকে প্রত্যাহার

Reporter Name / ৭৫ Time View
Update : শনিবার, ২৩ ডিসেম্বর, ২০২৩

‘নির্লিপ্ততা’ ও ‘দায়িত্ব অবহেলা’র কারণে ঝিনাইদহ জেলার শৈলকূপা ও হরিনাকুন্ডু থানার ওসিকে প্রত্যাহার করেছে নির্বাচন কমিশন। সাংবিধানিক সংস্থাটি জানিয়েছে, ভোটের প্রচারণাকে ঘিরে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর সমর্থকদের সঙ্গে পাল্টাপাল্টি হামলার ঘটনার প্রেক্ষাপটে এ দুই থানার ওসির বিরুদ্ধে দায়িত্ব অবহেলা বিষয়টি প্রমাণিত হওয়ায় প্রত্যাহার করা হয়েছে।

শনিবার ২৩ ডিসেম্বর দুপুরে আগারগাঁও নির্বাচন ভবনে নির্বাচন কমিশনের অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, ‘সংশ্লিষ্ট ডিসি ও এসপির তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর কমিশন এই ব্যবস্থা নিয়েছে।’

এর আগে নির্বাচন কমিশনার আহসান হাবিব খান, মো. আলমগীর ও আনিছুর রহমান বৈঠক করেন। বৈঠকে নির্বাচনি মাঠে বিশৃঙ্খলাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার বিষয়ে আলোচনা হয়।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে অতিরিক্ত সচিব বলেন, ‘যে কোনও অভিযোগ নির্বাচন কমিশনে আসবে, যেকোনও মাধ্যমে অভিযোগের প্রমাণ সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং অফিসার ও এসপির কাছে পাঠাবো, তাদের তদন্ত অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

সরকারি দলের প্রার্থীরা বার বার কেন আচরণবিধি লঙ্ঘন করছে, তাদের বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নিচ্ছেন এমন প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘আমরা অনেককে শোকজ করেছি। ইনকোয়ারি টিমের যে সুপারিশ আসছে সে অনুযায়ী আমরা ব্যবস্থা নিবো এবং অচিরেই দৃশ্যমান আপডেট পাবেন।’ বারবার সতর্ক করার পর জেল-জরিমানা ছাড়াও সর্বোচ্চ প্রার্থিতা বাতিলের বিষয়ে সতর্ক করে দেন তিনি।

শুক্রবার ২২ ডিসেম্বর দুটি আসনের তদন্ত রিপোর্ট পাওয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘যে রিপোর্ট পেয়েছি, তার আলোকে ঝিনাইদহ জেলার শৈলকূপা থানা ও হরিনাকুন্ডু থানার ওসির নির্লিপ্ততার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাদের প্রত্যাহার করা হয়েছে।’

তিনি জানান, সব জায়গায় ওসিরা তো নির্লিপ্ত নেই। দুয়েকটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটছে, সেখানে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর