সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ০৭:১৬ পূর্বাহ্ন

ক্রমাগত মিথ্যাচার আর গুজবের মাধ্যমে জনগণকে বিভ্রান্ত করে যাচ্ছে বিএনপি- কাদের

শেখ সাদী খান / ১২১ Time View
Update : মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪

আমাদের দেশে বিএনপির নেতৃত্বে বিরোধী দল ক্রমাগত মিথ্যাচার এবং গুজবের মাধ্যমে জনগণকে বিভ্রান্ত করার অপকৌশল চালিয়ে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন, আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

আজ মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) বিকালে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আমাদের দেশে বিএনপির নেতৃত্বে বিরোধী দল ক্রমাগত মিথ্যাচার এবং গুজবের মাধ্যমে জনগণকে বিভ্রান্ত করার অপকৌশল চালিয়ে যাচ্ছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন,সাংবাদিকদের মাধ্যমে একটা বিষয় জানতে চাই, বিএনপি যে কারাগারে তাদের সংখ্যা বলে ১৩ জনের কথা বলে, তাদেরকে জেলখানায় মেরে ফেলা হয়েছে। জেলখানায় যারা বন্দী আছে তারাও মানুষ,তাদেরও মৃত্যু হতে পারে। এবং এরকম মৃত্যুর খবর প্রায়শই আমরা বাইরে জানি। সংখ্যাটা ১৪,১৫  সে রকম বেরিয়েছে। এখন জেলে যে বন্দী অবস্থায় আছে তার কি মৃত্যু হবে না..”?
এখন এই যে জেলে বন্দী অবস্থায় এ লোকগুলো লোকগুলো বিএনপির এমন দাবী তারা করে কেমন করে?
তাহলে তারা বলুক,তালিকা দিক কারা কারা মারা গেছে। এবং কোথায় কোথায় বিএনপির কি দায়িত্বে তারা ছিলো?

কাদের আরও বলেন, আরেকটা বিষয় তারা কথায় কথায় গুম খুনের কথা বলে এবং বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থা বিশেষ করে পশ্চিমা দেশগুলোকে মিথ্যা তথ্যও তারা সরবরাহ করে এই গুমের ঘটনা নিয়ে। গুমের ব্যাপারেও আমাদের একই কথা। যে তথ্য উপাত্ত ছাড়া এ গুমরে ঘটনা তারা সরকারের উপর অপবাদ দেয়ার জন্য করে যাচ্ছে।

তিনি আরও বলেন,  আমরা গুমের অনেক খবর জানি। কক্সবাজারের সালাউদ্দিন যখন ওপারে ধরা পড়ে, তখন সে ঘুরে বেড়াচ্ছে রাস্তায়। ধরা পড়ার আগে বিএনপি অপপ্রচারই  করেছিলো যে সালাউদ্দিন কে গুম করা হয়েছিল। তারপরে একজন প্রখ্যাত সাংবাদিক ফরহাদ মাজার,তার সম্পর্কেও একই  রকম অপপ্রচার করা হয়েছে। পরে তাকে পাওয়া গেলো খুলনার মার্কেটে। অথচ আমাদের যে মাফুজ বাবুকে নিয়ে (নগর  ছাত্রলীগের নেতা) তারা (বিএনপি) গুম করলো সে বিষয়ে কোন কথা বলেনা। চট্টগ্রামে জামালউদ্দিন তাদের (বিএনপির) পার্টির নেতা। জামালউদ্দিন হঠাৎ করে অপহরণ, গুম। তারপর এক সময় তারা দোষ চাপালো যে আওয়ামী লীগ তাকে অপহরণ করে হত্যা করেছে। কিন্তু পরে দেখা গেলো যে জামালউদ্দিনকে তারাই (বিএনপি)  অপহরণ করে খুন করেছে।

সেতুমন্ত্রী আরও বলেন, কাজেই আমরা এখনো বলতে চাই,গুম খুন এইসব মিথ্যে তথ্য উপাত্ত ছাড়া, মিথ্যাচার যে তারা করছে সত্যটা কি?
এবং তারা বলুক এ গুম খুন কাদের করা হয়েছে? এর প্রমাণ কি? আমরা তালিকা দেখতে চাই। এ রকম অন্ধকারে ঢিল ছুড়বে বারেবারে এটা তা হয়না। এটা রাজনীতি নয়। রাজনীতিতে এখন তাদের যে অবস্থায় গেছে, লিফলেট বিতরণ করে তাদের ব্যর্থতা আড়াল করা যাবেনা। লিফলেটের ভাষা দিয়ে তাদের ব্যর্থতা আড়াল করার কোন স্পেস নেই। তারা এখন লিফলেট বিতরণের ছয় দিনের কর্মসূচি লক্ষ দেশ বাঁচাও,মানুষ বাঁচাও। আসলে দেশটাকে ধংস করো,মানুষকে মারো। এটা হল তাদের স্লোগান। এটা তাদের অতীতের কলংকিত ইতিহাসেরই অংশ।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন সাংগঠনিক  বি এম মোজাম্মেল হক, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক মো: আমিনুল ইসলাম আমিন,, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, কার্যনির্বাহী সদস্য, সাহাবুদ্দিন ফরাজী, আনোয়ার হোসেন,মারুফা আক্তার পপি,  ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক মো: রিয়াজ উদ্দিন রিয়াজসহ প্রমুখ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর