সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ০৯:২৬ পূর্বাহ্ন

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৩’শ কোটি টাকার আর্থিক অনিয়ম : মুজিবুল হক

নিজস্ব প্রতিবেদক / ১২২ Time View
Update : বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪
ফাইল ছবি

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৩’শ কোটি টাকার অডিট আপত্তি ও আর্থিকখাতের অনিয়মের অভিযোগ তুলে জাতীয় পার্টির মহাসচিব ও জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় চিফ হুইপ মুজিবুল হক বলেছেন, সরকার শক্তভাবে এগুলো হ্যান্ডেল না করলে দেশ খালি হয়ে যাবে। প্রধানমন্ত্রীকে কঠিন হওয়ার অনুরোধ তিনি বলেন, কঠোরভাবে এগুলো নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। এগুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হবে।

বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে অনির্ধারিত আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদের উদ্বৃতি দিয়ে মুজিবুল হক বলেন, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৩’শ কোটি টাকার আর্থিক অনিয়ম। সব থেকে বেশি অনিয়ম হয়েছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে। সরকার যদি শক্তভাবে এগুলো হ্যান্ডেল না করে তাহলে তো দেশ খালি হয়ে যাবে। ব্যাংক তো খালি হয়ে গেছে। ব্যাংকের মাধ্যমে এই যে যায়। নিশ্চয়ই এটা ওভার ইনভয়েজ আন্ডার ইনভয়েজ। এগুলো দেখার দায়িত্ব কার? আমরা কোথায় যাবো? অর্থ ও বাণিজ্যমন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীরা যদি এগুলো না দেখেন..। বাংলাদেশ ব্যাংক চুপচাপ বসে থাকেন। এই যে ব্যাংকের মাধ্যমে টাকা পাচার। এটা তাদের রিপোর্ট (বাংলাদেশ ব্যাংক)। তাহলে এতদিন তারা কী করেছিলেন? বাংলাদেশ ব্যাংক কেন বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারেনি। তারা কী জানে না কোন আইটেমের প্রাইজ কত? কোন ব্যবসায়ী কোন হিসাব থেকে এলসি করে। এটা ওভার ইনভয়েজ হচ্ছে না আন্ডার ইনভয়েজ হচ্ছে তারা কী জানে না? আমদানি-রপ্তানি একটি বিভাগ দেশে আছে না?

তিনি বলেন, সকালে ঘুম থেকে উঠে নেগেটিভ নিউজ দেখলে মনটা খারাপ হয়ে যায়। হাসপাতালে অ্যান্ড্রোসকপি করতে গিয়ে দেখলাম নেই।  তাকে ঢোকানো হলো তারপর বলা হলো মারা গেছে। খাতনা করাতে গিয়ে মৃত্যু হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীকে বলবো আপনি কঠিন হন। মানুষ এখন ভাবছে সরকারি দল বিরোধী দল কী করে? জবাবদিহি কোথায়? সরকার শক্ত না হলে আমাদের তো যাওয়ার যায়গা নেই। আশা করবো সরকার কঠোরভাবে এগুলো নিয়ন্ত্রণ করবে। ব্যবস্থা নেবেন।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর