শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ০৮:২০ পূর্বাহ্ন

অশ্রুসিক্ত চোখে পালমেইরাসকে বিদায় জানালো এনড্রিক

স্পোর্টস ডেস্ক / ২৫ Time View
Update : শুক্রবার, ৩১ মে, ২০২৪

ব্রাজিলিয়ান ফুটবলে এনড্রিক তেমন কোন বড় নাম নন। তবে মাত্র কিছুদিন আগে প্রফেশনাল ফুটবলে যাত্রা শুরু করা এই ব্রাজিলিয়ান যে বড় নাম হতে যাচ্ছেন সেই বিষয়ে সন্দেহ নেই।

বয়স ১৮ হওয়ার আগেই যখন বিশ্বের সেরা ফুটবল ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ তাকে দলে ভেড়ায়। তখন আর যাই হোক সেই ছেলের ফুটবল প্রতিভা সম্পর্কে সন্দেহ থাকার কথা নয়। তাইতো এত বড় এক ফুটবল প্রতিভাকে হারিয়ে প্রচন্ড হতাশ এনড্রিকের বর্তমান ক্লাব পালমেইরাস। এনড্রিক নিজেও অবশ্য আবেগপ্রবন হয়েই বিদায় নিয়েছেন নিজের শৈশবের ক্লাব থেকে।

গতকাল বৃহস্পতিবার পালমেইরাস ভক্তরা তাদের ঘরের মাঠ সাও পাওলোর অ্যালিয়াঞ্জ পার্কে কোপা লিবার্তাদোরেসে সান লরেঞ্জোর বিপক্ষে ম্যাচের আগে এনড্রিককে নিয়ে একটি হৃদয়স্পর্শী টিফো উন্মোচন করে। তাদের এই তরুণ তারকাকে নায়কের মতোই বিদায় জানায় পালমেইরাস ভক্তরা। লস ব্লাঙ্কোসদের শিবিরে যোগ দেওয়ার আগে ব্রাজিলিয়ান ক্লাবটির সাথে ১৭ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ডের শেষ ম্যাচ ছিল এটি।
এনড্রিকের জন্য করা টিফোটিতে লেখা ছিল ‘আত লোগো (আবার দেখা হবে)’। টিফোটিতে এনড্রিকের ছবি এবং সাও পাওলোর ক্লাবের প্রতীক দেওয়া ছিল। ভক্তরা সাদা পতাকা নেড়ে তরুণ এই ফরোয়ার্ডকে সম্মান জানায়।

ম্যাচের আগে মাঠে ঢুকার সময়ই আবেগপ্রবন হয়ে পড়েন এনড্রিক। প্রি-ম্যাচ হ্যান্ডশেকের সময় এনড্রিক অশ্রুসজল হয়ে পড়েন।
খেলা শুরুর আগে, তিনি পালমেইরাস ভক্তদের শুভেচ্ছা জানান এবং কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

সান লরেঞ্জো ডি আলমাগ্রোর বিপক্ষে ম্যাচটি ছিল গ্রুপ এফ-এর কোপা লিবার্তাদোরেসের শেষ খেলা এবং পালমেইরাসের জার্সিতে এন্ড্রিকের ম্যাচ। শৈশব থেকেই তিনি এই ক্লাবের সাথে রয়েছেন, পালমেইরাসের যুব র‍্যাঙ্কে অন্যতম প্রতিশ্রুতিশীল প্রতিভা হিসেবে মানা হতো তাকে।

এই ম্যাচের পরে, এনড্রিক জুনের ২০ থেকে জুলাই ১৪ পর্যন্ত নির্ধারিত কোপা আমেরিকার জন্য ব্রাজিলিয়ান জাতীয় দলের সাথে যোগ দিতে যুক্তরাষ্ট্রে যাবেন। জুলাইয়ে, তিনি রিয়াল মাদ্রিদের সাথে প্রাক-মৌসুম শুরু করতে মাদ্রিদে যাবেন, যেখানে তিনি তার ব্রাজিলিয়ান সতীর্থ ভিনিসিয়ুস জুনিয়র, রদ্রিগো গোয়েস এবং এডার মিলিতাওয়ের সাথে যোগ দিবেন।

এনড্রিক ফিলিপ মোরেইরা দে সৌজা বা সহজ ভাষায় এনড্রিকের নেইমারের পর থেকে ব্রাজিলিয়ান ফুটবলের সবচেয়ে বড় প্রতিভা হিসেবে ভাবা হচ্ছিল। বয়সের তুলনায় চমৎকার স্কিলধারী বাঁ-পায়ের এই খেলোয়াড়টি পালমেইরাসের যুব র‍্যাঙ্কে গোলস্কোরিং এবং শিরোপা অর্জনের জন্য অসংখ্য রেকর্ড ভেঙেছেন।

তিনি ২০২২ সালে পালমেইরাসের প্রথম দলের সাথে আত্মপ্রকাশ করেন, সেই বছর তাদের ব্রাজিলিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপ জিততে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন এবং ২০২৩ সালে প্রতিযোগিতার শেষ পর্যায়ে গুরুত্বপূর্ণ গোল করে এই কৃতিত্ব পুনরাবৃত্তি করেন।

এই বছর, এনড্রিক পর্তুগিজ কোচ আবেল ফেরেইরার অধীনে একজন গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় ছিলেন এবং কোপা লিবার্তাদোরেস গ্রুপ পর্বে তার প্রতিভার ছাপ রেখে পালমেইরাসকে নক আউট পর্বে তোলেন।

পালমেইরাসকে এনড্রিকের বিদায় তার ক্যারিয়ারের একটি গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়ের সমাপ্তি এবং বিশ্বের সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ ফুটবল ক্লাবগুলোর মধ্যে একটিতে নতুন অধ্যায়নের সূচনা করে। যেখানে বিশ্বসেরা একজন ফুটবলার হিসেবে গড়ে ওঠার সকল সম্ভাবনা রয়েছে তার মধ্যে।

 

সোনালী বার্তা/এমএইচ


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর